যুক্তরাজ্যে ব্যবসা বন্ধ করলো বিমানসংস্থা ফ্লাইবি

সংকটে ডুবে থাকা যুক্তরাজ্যের এয়ারলাইন্স ফ্লাইবি এবার করোনাভাইরাসের কারণে মারাত্মকভাবে ধাক্কা খেয়েছে। তাদের ব্যবসায়ে আশঙ্কাজনকভাবে ধ্বস নেমেছে এবং প্রতিষ্ঠানটি ব্যবসা বন্ধ রেখেছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম সিএনএনের প্রতিবেদনে এ তথ্য উল্লেখ করা হয়েছে।

এক বিবৃতিতে ফ্লাইবি গ্রাহকদের বলেছে, ‘কর্তৃপক্ষের নির্দেশ মতো সব ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে এবং তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা হিসেবে যুক্তরাজ্যে প্রতিষ্ঠানটির ব্যবসা বন্ধ রাখা হয়েছে।’

প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, ‘আপনি যদি ফ্লাইবির যাত্রী হয়ে থাকেন, তাহলে দয়া করে অন্য কোনো এয়ারলাইন্সের বিকল্প ফ্লাইটের ব্যবস্থা না করে বিমানবন্দরে আসবেন না। এই মুহূর্তে ফ্লাইবি যাত্রীদের জন্য বিকল্প এয়ারলাইন্সের ব্যবস্থা করতে সক্ষম নয়।’

ব্রিটিশ পরিবহন পররাষ্ট্র সচিব গ্রান্ট শ্যাপস আজ এক টুইটে বলেন, ‘খুব দুঃখজনক ব্যাপার হলো, চার দশক ধরে যাত্রীদের সেবা দিয়ে ফ্লাইবির ব্যবসা এখন বন্ধ। তাদের সহায়তার জন্য ইউকে বিমানবন্দরে সরকারি কর্মীদের প্রস্তুত থাকতে হবে।’

ইউরোপীয় পরিবহন দপ্তর বলেছে, ফ্লাইবি কর্মীদের যত তাড়াতাড়ি সম্ভব নতুন চাকরি খুঁজতে তারা সহায়তা করবে।

নিউজ সোর্স – ডেইলি স্টার

Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!