ভিসা ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানে কুয়েত

ভিসা ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানে কুয়েতের উচ্চ পর্যায়ের মন্ত্রি পরিষদ। পূর্বে দায়েরকৃত ভুক্তভোগীদের অভিযোগ গুলো নতুন করে খতিয়ে দেখছেন স্থানীয় প্রশাসনের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাবৃন্দ।

এতে করে আবারও শুরু হয়েছে ধরপাকড়। ভিসা বাণিজ্যের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা দিয়েছে দেশটি।

স্থানীয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত খবরে জানা যায়, ৩ জন কুয়েতি এবং ১১ জন প্রবাসীকে ভিসা বিক্রির অপরাধে আটকের পর তাদের জামিন না মঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ভিসা ব্যবসায়ের অভিযোগে অভিযুক্ত ওই তিনজন কুয়েতি ও ১১ জন প্রবাসী (নয় জন মিশরীয়, একজন সুদানী এবং একজন এশিয়ান) আটকের মেয়াদ বাড়ানোর রায় দিয়েছে দেশটির বিচারক।
এর আগে পাবলিক প্রসিকিউশন লঙ্ঘনকারী শ্রমিকদের নিয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় তদন্তের ফলাফলের ভিত্তিতে সন্দেহভাজনদের অভিযুক্ত করা হয়েছিলে।

ইতোমধ্যে পাবলিক প্রসিকিউশন তদন্তের ভিত্তিতে জানান, একজন কুয়েতি নাগরিক মিশর থেকে ২০০ জন প্রবাসী নিয়ে এসেছিল এবং তাদের চাকরি না দিয়ে ছেড়ে দিয়েছিল।

ভুক্তভোগীরা অভিযোগ করেন, কুয়েতি তাদের কাছ থেকে অর্থ নিয়ে কাজ দিতে অস্বীকার করেন। ভিসা ব্যবসায়ীদের বিরোদ্ধে শ্রমিকদের ক্ষুদ্রতম অভিযোগ গুলোও খতিয়ে দেখতে এখন তদন্তে নেমেছে স্থানীয় প্রশাসন। সূত্র: আরব টাইমস কুয়েত।

বিডি-প্রতিদিন

Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!