করোনা ভাইরাসের কারণে সকল ফ্লাইট বাতিল করেছে বৃটিশ এয়ারওয়েজ

বৃটিশ এয়ারওয়েজের কোনো ফ্লাইট গ্যাটউইক থেকে ছেড়ে যাচ্ছে না, আবার সেখানে কোনো ফ্লাইট আসছেও না। সব বিমান রয়েছে ভূ-তল স্পর্শ করে। অর্থাৎ গ্যাটউইকে সব অপারেশন বন্ধ করেছে বৃটিশ এয়ারওয়েজ। তারা এখন শুধু হিথরো বিমানবন্দরে তাদের সেবার দিকে মনোযোগ দিয়েছে।

এর আগে সোমবার গ্যাটউইক থেকে ইজিজেট তাদের ৩৩০টি বিমানের সবটাকে গ্রাউন্ডেড রাখে। অর্থাৎ এগুলো মাটি থেকে উপরে ওঠে নি। করোনা ভাইরাসের কারণে শুধু বৃটেন নয়, ইউরোপ, যুক্তরাষ্ট্রসহ মধ্যপ্রাচ্যের বেসামরিক বিমান চলাচলের ওপর ভয়াবহ এক প্রভাব বিস্তার করেছে।

বৃটেনের ওয়েস্ট সাসেক্স বিমানবন্দর থেকে ইউরোপ, আমেরিকা ও ক্যারিবিয়ান দেশগুলোতে ফ্লাইট পরিচালনা করে জেট এয়ারওয়েজ। এরই মধ্যে বোর্নিমাউথ, গ্লাসগো এবং কার্ডিফে তাদের সব বিমান স্থবির হয়ে আছে। তবে তারা লন্ডনের হিথরোতে কিছু ফ্লাইট এখনও চালু রেখেছে। ইজি জেট তাদের ৩৩০টি বিমানের পুরোটাই গ্রাইন্ডেড করার কয়েক ঘন্টা পরে গ্যাটউইকে কার্যক্রম আপাতত বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বৃটিশ এয়ারওয়েজ।

এ মাসের শুরুতে এই বিমান সংস্থাটির মালিকা প্রতিষ্ঠান আইএজি ঘোষণা দিয়েছিল পরবর্তী দু’মাসে তাদের সব ফ্লাইটের চার ভাগের মধ্যে তিন ভাগ কমিয়ে আনা হবে। পরিচালনা খরচ কমাতে এবং অর্থের প্রবাহ উন্নত করার জন্য তারা পদক্ষেপ নিচ্ছে বলে জানানো হয়।

Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!