ইতালির রোমে নতুন শনাক্ত ২১ জনের ২০ জনই বাংলাদেশি

বাংলাদেশ থেকে ইতালিতে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞার সময়সীমা ৩১ জুলাই পর্যন্ত বাড়তে পারে। এ তালিকায় নতুন করে যুক্ত হচ্ছে ভারত পাকিস্তানসহ তিনটি দেশ। এতে প্রবাসী বাংলাদেশিদের চাকরি হারানোর শঙ্কা আরো বাড়বে। এদিকে সোমবার রোমে নতুন করে করোনা শনাক্ত হওয়া ২১ জনের মধ্যে ২০ জনই বাংলাদেশি।

ইতালিতে আবারো সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার জন্য বিদেশি নাগরিকদের দায়ী করছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। অন্য দেশের নাগরিকরা ভাইরাস বহন না করলে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা শূন্যের কোটায় নেমে আসতো বলে দাবি ইতালির স্বাস্থ্যমন্ত্রীর।

এ অবস্থায় বাংলাদেশের পর স্পেন থেকে আসা ১১ পেরুভিয়ান নাগরিককে ফিরিয়ে দিয়েছে ইতালি। সেইসঙ্গে নতুন করে তিনটি দেশসহ ১৬টি দেশের নাগরিকদের আগামী ৩১ জুলাই পর্যন্ত ইতালিতে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি হতে যাচ্ছে। দেশটির জরুরি অবস্থা বাড়তে পারে আগামী ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত।

বাংলাদেশিদের ইতালির প্রবেশে নিষেধাজ্ঞার সময়সীমা বাড়ার খবরে উদ্বিগ্ন দেশটিতে বসবাসরত প্রবাসীরা।

অন্যদিকে বাংলাদেশে আটকে পড়া ইতালি প্রবাসীরদের আকুতি ফিরে আসার। সরকারের সহযোগিতা কামনা করেছেন তারা।

এরইমধ্যে নতুন একটি অধ্যাদেশে, সদ্য ফেরা প্রবাসীদের জন্য ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইন বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। এ আইন অমান্যকারীদের ফৌজদারি অপরাধের আওতার আনা হবে।

এদিকে লকডাউন উঠে যাবার পর ইতালিতে দোকানপাট খুলে দেওয়ার পাশাপাশি, সমুদ্র সৈকতও খুলে দেয়া হয়েছে। রোমের অস্ট্রিয়ার সমুদ্রসৈকতে দেখা যায় উপচে পড়া ভিড়। তবে ছিলো কোনো সামাজিক দূরত্ব কিংবা সরকারি নির্দেশনা মানার বালাই।

Source Link

Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!